ঢাকা ও দেশের বাইরে যাচ্ছে `গোয়েন্দাগিরি’  

বেস্ট বায়োস্কোপ, ঢাকা: ঈদুল আযহায় চ্যানেল আইয়ে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হয়েছিলো নাসিম সাহনিকের চলচ্চিত্র গোয়েন্দাগিরি। চলচ্চিত্রটির  বিষয়বস্তু এবং গল্পবলার ভিন্নতার কারণে দর্শকের কাছে বিশেষ প্রশংসিত হয়েছে। এবার ঢাকা ও দেশের বাইরের দর্শকরাও সিনেমাহলে ছবিটি দেখতে পাবেন বলে জানিয়েছেন নির্মাতা।

মামুনুর ইসলাম প্রযোজিত চলচ্চিত্রটির পরিবেশনায় ছিল আম্মাজান ফিল্মস। গত ২৬ জুলাই মুক্তি পায় ‘গোয়েন্দাগিরি। দর্শকরা বিশেষ করে শিশু কিশোর আর তরুণ প্রজন্ম চলচ্চিত্রটিকে ইতিবাচকভাবে নিয়েছে। চ্যানেল আইতে চলচ্চিত্রটি দেখে অনেকের কাছেই মনে হয়েছে ভিন্নধর্মী একটি উদ্যোগ। এ ধরনের রুচিশীল এবং পরিবার নিয়ে দেখা যায় এমন চলচ্চিত্র আমাদের সমাজ পরিবারকে ভালো কিছু দিবে। এরকম জানালেন বেশকিছু বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া দর্শক।

যেখানে অশ্লীল কনটেন্টের কারণে সামাজিক মূল্যবোধের অবক্ষয় ঘটেছে এবং ধর্ষণ – মাদক বেড়েছে মাত্রাতিরিক্ত আকারে সেই পরিস্থিতিতে গোয়েন্দাগিরির মতো সুস্থধারার চলচ্চিত্র দর্শককে দিয়েছে সুস্থ বিনোদন। তরুণ প্রজন্মকে এবং আমাদের সকলকেই অসুস্থ কনটেন্ট পরিহার করতে হবে এবং সুন্দর রুচিশীল সমাজ গড়ে তুলতে হবে। মানুষের মাঝে সামাজিক মূল্যবোধ গড়ে তোলার ক্ষেত্রে সুস্থ সংস্কৃতিই হোক অন্যতম হাতিয়ার। এজন্য সর্বস্থরে আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে , মানুষকে করতে হবে সচেতন। এরকম বললেন ঢাকার শিল্পকলার বেশ কয়েকজন সংস্কৃতিকর্মী।

বেশ কয়েকজন চলচ্চিত্রকর্মী নির্মাতার এই ভিন্নধর্র্মী উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন এবং এই চলচ্চিত্রের ভুল ভ্রান্তি থেকে শিখে নিয়ে ভবিষ্যতে আরও ভালো চলচ্চিত্র নির্মাণের পরামর্শ দিয়েছেন। গোয়েন্দাগিরির গল্পে দেখা যায় , একদল টিনএজ ছেলেমেয়ে ছুটিতে বেড়াতে যাচ্ছে। তাদের একটি বিশেষ পরিচয় হচ্ছে তারা স্বপ্ন দেখে যে ভবিষ্যতে বড় গোয়েন্দা হবে। তাদের কারও আইডল শার্লক হোমস , কারও ফেলুদা , কারও তিন গোয়েন্দা , কারও আবার জেমস বন্ড। যাই হোক তাদের এবারের অভিযানটা শুরু হয় যখন মিডিয়াতে একটি পুরনো ভুতুড়ে বাড়ি নিয়ে হইচই পরে যায়। বনের মধ্যে অবস্থিত বাড়িটি নাকি অভিশপ্ত। অভিশপ্ত এই বাড়ির রহস্য উন্মোচনে ঝাঁপিয়ে পড়ে এই শখের গোয়েন্দারা।

চলচ্চিত্রটিতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন শম্পা হাসনাইন , কল্যাণ কোরাইয়া, মিম চৌধুরি, সীমান্ত আহমেদ, কচি খন্দকার, তারেক মাহমুদ, টুটুল চৌধুরি, শিখা খান,তানিয়া বৃষ্টি,ইশরাত চৈতি,প্রিন্স প্রমুখ।

‘গোয়েন্দাগিরি’ চলচ্চিত্র নিয়ে নির্মাতা নাসিম সাহনিক বলেন, ‘বেশ প্রস্তুতি নিয়ে ‘গোয়েন্দাগিরি’ নির্মাণ করা হয়েছে। চলচ্চিত্রটি ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে চ্যানেল আইয়ে ওয়ার্ল্ড প্রিমিয়ার হওয়ায় ভালো লাগছে। এর মাধ্যমে দেশব্যাপী দর্শকের কাছে ‘গোয়েন্দাগিরি চলচ্চিত্রটি পৌছে যায়। পাশাপাশি দেশের বাইরে চ্যানেল আইয়ের যে অসংখ্য দর্শক রয়েছে তারাও চলচ্চিত্রটি উপভোগ করার সুযোগ পায়। আমাদের ইচ্ছা শীঘ্রই ঢাকার বাইরে প্রায় সকল জেলাতে গোয়েন্দাগিরি চলচ্চিত্রের প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করা এবং দেশের বাইরে বাঙ্গালি দর্শকদের জন্য চলচ্চিত্রটির বিশেষ প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করা।’

প্রযোজক মামুনুর ইসলাম বলেন, ‘ আম্মাজান ফিল্ম সিনেমা দর্শকদের জন্য রুচিশীল ও আকর্ষণীয় চলচ্চিত্র উপহার দিতে চায়। সেই প্রয়াস থেকেই নির্মাণ করা হয়েছে ‘গোয়েন্দাগিরি’ চলচ্চিত্রটি। চলচ্চিত্রটি শিশুকিশোরদের জন্য একটি অসাধারণ নির্মাণ। এটি এমন একটি চলচ্চিত্র যেটি কীনা বড়দেরকেও শৈশবে ফিরিয়ে নিয়ে যাবে।’

বেস্ট বায়োস্কোপ বিনোদন
৩০ আগস্ট ২০১৯

Comments

comments

Leave a Reply

0 Shares
Share via
%d bloggers like this: